অমলেন্দু বিশ্বাস

শান্ত-শ্যাওলা জলে

 

সন্ন্যাস রঙের পাশে তবুও খেতের হরিয়ালি

ধরে রাখে থোকা থোকা হলুদ ফুলের হর্ষ

ভ্রমরের যাতায়াত এইসব সর্ষে ফুলে

সহসা দাঁড়াই এসে ফেলে আসা মৌবন সময়।

কখনো কি মনে হয় ঢলে আসা কিরণের রং

তোমার পথের দিকে চেয়ে আছে ষোড়শী মেয়েটি

পুরোনো পুকুরপাড়ে সাদা বক কার অপেক্ষায়

অথচ তাকিয়ে দ্যাখো নিস্তরঙ্গ পুকুরের জল

শান্ত, স্তিধিময় পুষে রাখে ভেতরে ভেতরে

 

এদিকে ডাঙার দিকে ফাজিল বাবলা গাছে

মাছরাঙা পাখিটির ভুলে যাওয়া ডানার বিভঙ্গ

ঠিকঠাক বুঝে নিতে নিঃশ্চুপে জিরোচ্ছে

অথচ শিকার গন্ধ নেই, উদাসীন চোখে

বিরহবিধুর আভা ঝুলে আছে শান্ত-শ্যাওলা জলে।