রজত বিশ্বাস

নীল বেদনার গান 

 

 

বিষাদের রং  দিয়ে

লিখেছি গানের গদ্য

গানের বাণীও আসলে কিন্তু

সাধ্য সাধন তত্ত্ব।

 

ছন্দের ধুলো মেখে

বেরোচ্ছে যে পদ্য,

সে পদ্যের উৎস আসলে

আঁধার সূচীভেদ্য।

 

কথা নিয়ে কথকতা

সুরের আধারে মেলা

গদ্য -কঠিন উৎস ভূমির

অন্তর্গত খেলা।

 

দুই 

 

বেদনা পেরিয়ে ঐ যে নদীর বাঁক,

অনুরাগগুলো হয়ে গেছে নির্বাক ;

চলার শব্দ এখনও স্তব্ধ নয়,

দ্যাখো আকাশ শান্তিময়।

 

ও নদী ব্যস্ত স্মৃতিদের কলতানে,

ফেরারি বাতাস অবসাদ বয়ে আনে,

নুড়িবালিদের কষ্ট জমেছে খাদে,

আকাশ কেনোযে আমার মতোই কাঁদে !

 

সাঁকোটাই শুধু বাঁচিয়েছে অভিযান,

মেঘেরা জেনেছে সূর্যের সম্মান ;

টুকরো আগুন চোয়ানো জ্যোৎস্না থেকে

অনন্তকাল অন্ধকারই খোঁজে।

 

আমিও খুঁজছি হৃদয় জুড়ানো গান ;

ছুঁড়ে ফেলে দিয়ে অভিযোগ -অপমান,

আত্মকথাকে মিশিয়ে নদীর সাথে

আত্মমগ্ন বিষাদের কথা গাঁথে।