সুনেন্দু পাত্র

জলের বাড়ি

 

ছোট্ট ছোট্ট প্রশ্বাস জুড়ে মায়ের পৃথিবী।

সেখানে জল ফড়িংয়ের সাথে খেলা করে

আশ্চর্য সব নিরিবিলি ঢেউ আর উন্মাদগ্রস্ত

দিবারাত্রির সংলাপ ।

এইসব জাগরণ ঘিরে আমাদের

যাবতীয় অস্তিত্ব ও নিবিড় বিপন্নতাবোধ ।

তবুও হাসি কাঁদি আর ধানের শীষে মাথা

রেখে কাটিয়ে দিই এক প্রস্তর যুগ ।

কিন্তু গ্রামীণ সংবিধান কখনো ফুরোয় না

তার অক্ষরে লেগে থাকে কিছু মা হারা

বালক চোখ ও রুমা বৌদির বিনিদ্র রূপকথা ।

এখন ক্লান্ত পায়ে জলের ধারে বসি ।

ভোরের স্রোতে এঁকে নিই

আমার শহর ও অহংকার ।

বিকেলটা আবার ঘন আসে, আর দুচোখ

গভীর করে খুঁজে বেড়াই মায়ের আবছা মুখ ।