বিকাশ গায়েন 
লুঠের  বাতাসা  

আমাকেও কেন দেবে ? আমি কারো পাকা ধান
জোর করে এনে তার গোলায় তুলিনি।
হাঁটুমুড়ে পদতলে বসে বলিনি : অন্যায়
হয়ে গেছে ,এবারকার মত ক্ষমা করে দিন ।
এর পর থেকে আপনি যেমনটি বলবেন
সেরকম গেয়ে শোনাব বিজয়গাথা
চক্ষু কর্ণ ত্বক এই দেখুন তুলে ফেলছি ।

আপনার পোশাক, যদিও সামান্য মাপে ছোট
তা হোক ,তা হোক গায়ে চাপিয়েছি।

পোশাকেরও  ধর্ম আছে , যার
গায়ে চামড়া থাকে তার কোন পোশাক লাগে না।

শীত গ্রীষ্ম বর্ষা ধরে অধমের তিনটেই তো ঋতু
বাকিগুলো ভাবাই বিলাস ।
চাঁদের দু এক কুচি, ময়ূরের খসে পড়া পাখা
রুপোলি তবকে মোড়া থালাচাঁছা এঁটো অক্ষর
আমার রাক্ষুসে খিদে কনামাত্র ভরবেনা তাতে।
রোদে তেতে ঘামে ভিজে শিখে নিই আকাশের ভাষা
যে পারে সে ঝুঁকে পড়ে তুলে নেবে লুঠের বাতাসা ।